কিছু পড়ে দেখুন

সিরাতুন নবি সা. (সব খণ্ড)

লেখক:

অনুবাদক:

আবদুর রশীদ তারাপাশী,

নুরুযযামান নাহিদ,

মহিউদ্দিন কাসেমী

সম্পাদক:

কালান্তর সম্পাদনা পরিষদ

প্রকাশক:

কালান্তর প্রকাশনী

পৃষ্ঠাসংখ্যা:

1600

ভাষা:

বাংলা

দেশ:

বাংলাদেশ

রেটিং:
(1 customer review)

৳ 1,460

শত শত সিরাত পড়তে কার না মন চায়! মন তো চায়, রাসুলের যত জীবনী আছে, সব আমার পড়া থাক। কিন্তু মন চাইলেও জীবন ও জীবিকার চাপে আমরা অনেক কিছুই পড়ি না। অনেক কিছু মাটির মানুষের পক্ষে সম্ভবও না।

বিশ্ব জুড়ে চলছে সিরাতের নানামুখী কাজ। সে ধারাবাহিকতায় একটি সিরাত যদি এমন পাওয়া যায়, যেটি অনেক সিরাতের মূল স্বর ও সুরকে ধারণ করছে, তাহলে কেমন হয়!

ড. শায়খ আলি মুহাম্মাদ সাল্লাবি রচিত এই সিরাত আপনাকে শত শত সিরাত পাঠের নির্যাস, তথ্য ও অভিজ্ঞান দিতে পারে। সিরাতটি সেভাবেই রচিত। সিরাতটির আরও একটি দিক এই—রাসুলের জীবন-অভিজ্ঞতাকে অবলম্বন করে বর্তমান সময়ের রাজনৈতিক অস্থিরতার সমাধান এতে বিশেষ গুরুত্ব পেয়েছে।

মানব-জীবনের শুদ্ধতার মাপকাঠি নবিজির আদর্শ। তাই তাঁর জীবনী বা সিরাত অধ্যয়ন করা প্রত্যেক মুসলমানের জন্য অতি জরুরি। তাই ড. সাল্লাবি রচিত প্রায় ১৬৫০ পৃষ্ঠার ৩ খণ্ডের সিরাতুন নবি সা.-এর মতো বহু-বৈশিষ্ট্যমণ্ডিত একটি গুরুত্বপূর্ণ ও তাৎপর্যবহ সিরাত মুসলিম-মাত্র সংগ্রহে থাকা অতি দরকারি।

লেখক:

অনুবাদক:

আবদুর রশীদ তারাপাশী,

নুরুযযামান নাহিদ,

মহিউদ্দিন কাসেমী

সম্পাদক:

কালান্তর সম্পাদনা পরিষদ

প্রকাশক:

কালান্তর প্রকাশনী

পৃষ্ঠাসংখ্যা:

1600

ভাষা:

বাংলা

দেশ:

বাংলাদেশ

রেটিং:
(1 customer review)

1 review for সিরাতুন নবি সা. (সব খণ্ড)

  1. Afi Emon

    #কালান্তর_ওয়াফিলাইফ_রিভিউ_প্রতিযোগিতা

    নবীজি হযরত মুহাম্মদ (সাঃ), যেই নাম প্রত্যেক মুসলিম-মুসলিমার অন্তরের প্রশান্তি, ইতিহাসের পাতায় যেই নাম সমান ভাবে বিচরন করছে ১৪০০ বছর ধরে, শত সহস্র প্রচেষ্টার পরও যেই নামের সাথে লাগানো যায় নি একটু কালো দাগ, হয়নি মলিন ঘোলাটে.. কি আছে এই নামে?

    আসলে নামটা যে মানব ইতিহাসের সর্বকালের সর্বশেষ্ঠ মানব, আল্লাহ সুবহানাহু ওয়াতাআ’লার প্রেরিত সর্বশেষ রাসূল, মুসলিম-অমুসলিম নির্বিশেষে সকল মানুষের সর্বোত্তম জীবনাদর্শ নবী মুহাম্মদ (সাঃ) এর। তার সম্পর্কে আমরা মুসলিম কতটুকুই বা জানি?

    বাংলাদেশি মুসলিমদের জন্য বাংলা ভাষায় অসংখ্য সিরাত গ্রন্থ রচিত হয়েছে। আমাদের প্রানের চেয়ে প্রিয় রাসূল (সাঃ) কে জানার জন্য কালজয়ী সব সিরাত গ্রন্থ যেমন- আর রাহিকুল মাখতুম, সিরাত ইবনে হিসাম ইত্যাদি বাংলা ভাষায় বহু বার অনুবাদিত ও প্রকাশিত হয়েছে। কিন্তু এই গ্রন্থগুলোর কলেবর একটু ছোট হবার কারনে আমাদের কাছে অজানা রয়ে গেছে নবীজি (সাঃ) এর জীবনের অনেক গুরুত্বপূর্ণ অধ্যায়। আবার বড় কলেবরের গ্রন্থ পড়তে গিয়ে অনেকেই ধৈর্য্য হারিয়ে ফেলে। ফলাফল হল সিরাত ইতিহাস পাঠের যে মূল উদ্দেশ্য, নবীজি (সাঃ) এর জীবনি থেকে শিক্ষা গ্রহন করে নিজেকে সাজানো, তাতে আমরা সফলতা পাইনি।

    এই সমস্যার সমাধান যে এভাবে হয়ে যাবে ভাবি নি। বিশিষ্ট ইতিহাস গবেষক, ফকিহ, রাজনীতিবিদ ড. আলি মুহাম্মাদ সাল্লাবি স্যার এর গ্রন্থ আস-সিরাতুন নাবাবিয়্যাহ আরজু ওয়াকায়ি ওয়া তাহলিলু আহদাস এর অনুবাদ গ্রন্থ সিরাতুন নবি (সাঃ) যা কালান্তর প্রকাশনি থেকে প্রকাশিত হয়েছে। ৩ খন্ডের কলেবরে বইটি করেছে বাংলা ভাষাভাষী দের জন্য সিরাত সংক্রান্ত সকল সমস্যার সমাধান।
    বইটির বৈশিষ্ট্যসমূহ-

    ১. নবীজি (সাঃ) এর জন্মপূর্ব বিশ্বের দূর্বিষহ অবস্থা থেকে শুরু করে নবীজি (সাঃ) এর মৃত্যু পর্যন্ত বিস্তারিত সকল বর্ননা উঠে এসেছে এই বইটিতে।

    ২. বইটি ড. আলি মুহাম্মাদ সাল্লাবি স্যার এর শত সহস্র সিরাত গবেষনার ফল। সুদূর অতিত থেকে শুরু করে বর্তমান পর্যন্ত যত ধরনের সিরাত গ্রন্থ রচিত হয়েছে বলা যায় এই বইটি ওই সমস্ত গ্রন্থের মূল নির্যাস, যা বইটির রেফারেন্স দেখলে ধারনা করা যায়।

    ৩. সিরাত পাঠের মূল বিষয় হল শিক্ষা, যা এই বইটিতে লেখক খুবই সুন্দর করে বর্তমান পরিস্থিতির সাথে সামঞ্জস্য করে ব্যাখ্যা করেছেন। মুসলিম উম্মাহর জন্য এই শিক্ষা খুবই গুরুত্বপূর্ণ। আর বর্তমান পরিস্থিতির আলোকে এর গুরুত্বের কথা আলাদা করে বলার প্রয়োজন নেই।

    ৪. যারা ড. আলি মুহাম্মদ সাল্লাবি স্যার এর লেখা আগে পড়েছেন তারা খুব ভালো করেই তার লেখনি সম্পর্কে জানেন। উনি পাঠককে একদম টাইম মেশিনের মত অতিতে নিয়ে যায়। অনুবাদক বৃন্দ তার লেখার ভাব ধরে রাখার সর্বোচ্চ চেষ্টা করেছেন, যা আপনি বইটি পড়লেই বুঝতে পারবেন। হারিয়ে যাবেন অতিতে।
    আল্লাহ তাআলা বলেন-‘তোমাদের মধ্যে যারা আল্লাহ ও পরকালকে ভয় করে এবং আল্লাহকে অধিক স্মরণ করে তাদের জন্য রাসুলুল্লাহ সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়া সাল্লামের (চরিত্রের) মধ্যে রয়েছে সর্বোত্তম আদর্শ।’ (সুরা আহযাব : আয়াত ২১)
    তাই নিজের জীবনকে রাসূল (সাঃ) এর প্রদত্ত শিক্ষার আলোকে সাজানোর কোনো জুরি নেই। আর আমাদের রাসূল (সাঃ) এর জীবনি থেকে পরিপূর্ন শিক্ষা অর্জনের জন্য এই বইটি অনবদ্য হয়ে থাকবে।

Add a review

Your email address will not be published.