মুসা আল হাফিজ

জন্ম : ৫ অক্টোবর ১৯৮৫।
জন্মস্থান : বিশ্বনাথ, সিলেট।
পেশা : শিক্ষকতা।


প্রকাশিত গ্রন্থ : ১৬টি। (কবিতা: ২, ছড়া: ২, জীবনী :৪, {বিষয় : শেখ সা’দী, আবদুর রহমান জামী, মনসুর হাল্লাজ, জালালুদ্দীন রুমী} গবেষণা : ৫ {বিষয়: প্রাচ্যবাদ, কাব্যনাটক, সভ্যতার সংঘাত} প্রবন্ধ : ১, {বিষয় : সমাজ, সংস্কৃতি, ইতিহাস, রাজনীতি} অনুবাদ : ২, {বিষয় : ইহুদীবাদ, আধ্যাত্মিকতা} পাণ্ডুলিপি : দুই হাতে সূর্য (গল্প), জনকের নাম (গবেষণা) রহস্যের রাজপুত্র (উপন্যাস) দুধের নদী (ছড়া)।


মুসা আল হাফিজের লেখালেখির শুরু গল্প দিয়ে। পরে তাঁর রচনাধারা স্পর্শ করেছে বহুমাত্রা। সাহিত্য, দর্শন ও সমাজমনস্ক প্রবন্ধ লিখেছেন। গবেষণায় সফর করছেন একের পর এক দিগন্ত। অনুবাদ করেছেন। আরব ও পারস্যের প্রেমিক কবিদের নিয়ে লিখেছেন চিত্তস্পর্শী গদ্য। সমালোচনা করেছেন কবিতার, সাহিত্যের। ইসলাম ও পাশ্চাত্যের বুদ্ধিবৃত্তিক সম্পর্ক ও সংঘাত নিয়ে কাজ করেছেন। কিন্তু মূলত তিনি কবি এবং কবিতাই হচ্ছে তাঁর আসল ধ্রুবা।


আবদুল্লাহ আবু সায়ীদ এর ভাষায় সংক্ষেপে উঠে এসেছে মুসা আল হাফিজের চেতনালোক। তিনি লিখেন, ‘মুসা আল হাফিজের সাথে আমার আত্মার সম্পর্ক। বর্ণিল এক আলোকপিয়াসী চৈতন্যের ভাষ্যকার তিনি। তাঁর সপারগ হাত চলমান অবক্ষয়ের বিপরীতে হৃদয়ের সওদা বিতরণ করছে। মানুষের পরম সত্তাকে জাগ্রত করার জন্য যে প্রেম ও শিল্প এই কবির অন্বেষা, তা আজ মানবতার বড়ই প্রয়োজন। তার দীপান্বিত বোধ যে অমৃতময় উৎসবের দিকে যাত্রা করে, সেই যাত্রাপথ ঐশ্বর্যের সম্ভারে সমৃদ্ধ।”